learn-what-digital-marketing-is-all-about

ডিজিটাল মার্কেটিং কি এর প্রয়োজনীয়তা

ডিজিটাল মার্কেটিং (Digital Marketing) কি? ডিজিটাল মার্কেটিং এর প্রয়োজনীয়তা

বর্তমান বিশ্ব হলো ইন্টারনেটের যুগ। আগের মানুষ বিভিন্ন ব্যানার ছাপিয়ে বা মাইকিং করে এডভার্টাইজিং করতো। কিন্তু বর্তমানে এই এডভেটাইজ একটা ইন্টারনেটে করা হয়। তাহলে চলুন আমরা আগে জেনে নেই ডিজিটাল মার্কেটিং কি?

বর্তমানে ব্যবসায় শাখার সবচেয়ে বড় ও উন্নত শাখাটির নাম হলো ডিজিটাল মার্কেটিং। এই আর্টিকেলে ডিজিটাল মার্কেটিং কি এবং এটি দ্বারা কিভাবে ব্যবসাকে সমৃদ্ধ এবং খুব দ্রুত উন্নত করা যায় সে বিষয়ে বিস্তারিত আলোচনা করা হয়েছে ।

ডিজিটাল মার্কেটিং (Digital Marketing) কি?

ডিজিটাল মার্কেটিং (Digital Marketing) মানে অনলাইনে পন্য বা সার্ভিসের বিজ্ঞাপন প্রচার করাকেই বুঝায়। এখন সেটা হতে পারে সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে, হতে পারে সার্চ ইঞ্জিন মার্কেটিং এর মাধ্যমে, হতে পারে সার্চ ইঞ্জিন অপটিমাইজেশনের মাধ্যমে, আবার হতে পারে ইমেইল মার্কেটিং এর মাধ্যমে।

এককথায় বলা যায়- ডিজিটাল মার্কেটিং হল ইলেকট্রনিক মিডিয়ার মাধ্যমে পণ্য,প্রতিষ্ঠান বা ব্র্যান্ডের প্রচারনাকে বোঝায়। ইন্টারনেট ব্যবস্থা ডিজিটাল মার্কেটিং এর সঙ্গে ঘনিষ্ঠভাবে যুক্ত। যেমন- গুগল, ইউটিউব, বিভিন্ন ওয়েবসাইট, ফেসবুক সহ নানান সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম। > Best Free WordPress Themes

সংক্ষেপে ডিজিটাল মার্কেটিং (Digital Marketing) এর ধাপসমূহ:

  • এসইও বা সার্চ ইঞ্জিন অপটিমাইজেশন
  • এসইএম বা সার্চ ইঞ্জিন মার্কেটিং
  • কন্টেন্ট মার্কেটিং
  • সোশ্যাল মিডিয়া মার্কেটিং বা এসএমএম
  • এফিলিয়েট মার্কেটিং
  • ইমেইল মার্কেটিং
  • ই-কমার্স প্রোডাক্ট মার্কেটিং
  • সিপিএ মার্কেটিং (ইত্যাদি)

ডিজিটাল মার্কেটিং (Digital Marketing) এর প্রয়োজনীয়তা:

ডিজিটাল মার্কেটিং না হলে বিজ্ঞাপনের জন্য কোটি কোটি ডলার খরচ হতো। তবুও কোম্পানিগুলি বিজ্ঞাপনের জন্য মিলিয়ন মিলিয়ন ডলার ব্যয় করে, কিন্তু এই বিজ্ঞাপনগুলি সঠিক লোকেদের কাছে পৌঁছায়। যা আগে কখনো পৌঁছায়নি।

আপনি যদি ডিজিটাল মার্কেটিং করতে চান তবে আপনাকে অবশ্যই এই বিষয়ে ভালো জ্ঞান থাকতে হবে। আপনি চাইলে ইউটিউব ভিডিও দেখে ডিজিটাল মার্কেটিং সম্পর্কে ভালো ধারণা পেতে পারেন। অনলাইনে অনেক পেইড কোর্স আছে যেগুলো ডিজিটাল মার্কেটিং শেখায়, আপনি সেগুলো করতে পারেন।

ডিজিটাল মার্কেটিং (Digital Marketing) এর ফলাফল:

একটি পণ্যের প্রচারের জন্য এটি প্রচুর অর্থ ব্যয় করত। কিন্তু তা অনেক সময় সঠিক মানুষের কাছে পৌঁছায় না। কিন্তু ডিজিটাল মার্কেটিং আসার ফলে কম খরচে যেকোনো পণ্যের বিজ্ঞাপন দেওয়া যায়। আর সেই পণ্যের বিজ্ঞাপন সহজেই সঠিক মানুষের কাছে পৌঁছে যায়। ফলে কোম্পানির বিক্রি অনেক বেড়ে যায়।

এইভাবে, সমস্ত কোম্পানি ডিজিটাল বিপণনের মাধ্যমে তাদের পণ্যের বিজ্ঞাপন দেয়। এভাবে কম খরচে বেশি পণ্য বিক্রি করে কোম্পানি ভালো মুনাফা করতে পারে।

যার কারণে ডিজিটাল মার্কেটিং এর চাহিদা দিন দিন বাড়ছে।

আশা করি আপনি ডিজিটাল মার্কেটিং বুঝতে পেরেছেন। আমি ডিজিটাল মার্কেটিং এর প্রতিটি বিষয় আলাদা আলাদা করে অন্য একটি পোস্টে আলোচনা করার চেষ্টা করব।

উপসংহার

পরিশেষে বলতে চাই, ডিজিটাল মার্কেটিং শিখে রাখাটা এখন সময়ের দাবী। আপনি যদি ধৈর্য্য এবং অধ্যবসায়ের মাধ্যমে ডিজিটাল মার্কেটিং শিখে নিতে পারেন তাহলে ধরে নিবেন আপনি ভবিষ্যতের জন্য প্রস্তুত। তবে ব্যাপারটা বলা যত সহজ করাটা ঠিক তার থেকে কয়েকগুণ বেশি কঠিন।

অনেক সময়, অনেক এক্সপেরিমেন্ট, অনেক কিছু বোঝার মাধ্যমে আপনার নিজেকে ডিজিটাল মার্কেটিং এ দক্ষ করে তুলতে হবে। আপনি যদি কিছুদূর যাওয়ার পর হাল ছেড়ে দেন তাহলে হবে না। তবে আশার কথা হচ্ছে, ঘুড়ি লার্নিং এর ডিজিটাল মার্কেটিং শেখা বিষয়ের ওপর একটি দারুণ কোর্স আছে। আপনি চাইলে যেকোন সময় কোর্সটিতে ভর্তি হতে পারেন।

এই ছিল আমাদের আজকের আলোচনা। আশা করছি, আমাদের আজকের আলোচনা আপনাকে ডিজিটাল মার্কেটিং কি এবং ডিজিটাল মার্কেটিং এর প্রয়োজনীয়তা সম্পর্কে জানতে পেরেছেন। আসলে আমাদের উদ্যেশ্য ছিল আপনাদেরকে ডিজিটাল মার্কেটিং সম্পর্কে একটি সম্মক ধারণা দিতে যেন আপনারা আপনাদের ব্যবসা কে অনেক দূরে নিয়ে যেতে পারেন।

আরো জানুন: দ্রুত নতুন ফ্রিল্যান্সিং শেখার বিষয়ে কিছু প্রশ্নের উত্তর

Leave a Comment